Press "Enter" to skip to content

পূর্বধলায় মোবাইল ব্যাংকিং নগদ/বিকাশ প্রতারণার শিকার প্রায় অর্ধশত মানুষ

পূর্বধলায় প্রতারক চক্রের সদস্যরা প্রতিনিয়ত একের পর এক গ্রামের মানুষদের কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

“গত কয়েক দিনে পূর্বধলা উপজেলার অনেকের নগদ/বিকাশ একাউন্ট থেকে টাকা হাতিয়ে নেওয়া হয়েছে। গ্রামের সহজ সরল বয়স্ক, পুরুষ এবং মহিলাদের নগদ/বিকাশ একাউন্টের গোপন পিন নাম্বার দিয়ে প্রতারণরার শিকার হয়েছেন।

পূর্বধলা উপজেলা আগিয়া ইউনিয়নের মহিষবেড় গ্রামের মৃত ইউনুছ আলীর স্ত্রী রোমেছা খাতুন, ঘাগড়া ইউনিয়নের সানকিডোয়ারী গ্রামের মৃত আঃ হাইয়ের স্ত্রী জোলেখা খাতুন সহ আরও অনেকেই এই প্রতারণার শিকার।

ভুক্তভোগী জোলেখা খাতুন বলেন আজ সকালে ০১৮৭০৫৮৯৫০৯ এই নাম্বার থেকে আমার ফোনে কল আসে এবং আমাকে বলে আমি সমাজ সেবা অফিস থেকে বলছি। আপনার একাউন্টে চলতি মাসে টাকা কম পাঠানো হয়েছে, বাকি টাকা পাঠানোর জন্য আমাদেরকে সহযোগিতা করবেন। দ্রুত পিন নাম্বার দেন, এবার পুরো টাকা পাঠিয়ে দেব”। এমন কথা বলে বয়স্ক, বিধবা, প্রতিবন্ধীর টাকা হাতিয়ে নিয়েছে।

এ প্রতারনা থেকে বাদ পরছে না স্কুল কলেজের বৃত্তি প্রাপ্ত ছাত্র/ছাত্রীরা। অজ্ঞাত প্রতারক চক্র তাদের ব্যবহৃত একের অধিক নম্বর থেকে কল করে। টাকা নেওয়ার কয়েক ঘণ্টা পর তাদের মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়।

এ বিষয়ে সচেতন মহলের কয়েকজন জানান, গ্রামগঞ্জের অনেক সহজ সরল মানুষ আছেন তারা ওই প্রতারক চক্রটির প্রতারণার বিষয়টি সহজে বুঝেন না ও প্রতারনার শিকারহন।
এসব কম্পানিগুলি আরো কঠোর অবস্থান, প্রশাসনের নজরদারী ও জনসাধারণকে সচেতন করাও প্রয়োজন বলে মনে করেন।

More from অর্থনীতিMore posts in অর্থনীতি »
More from আইন আদালতMore posts in আইন আদালত »
More from গণমাধ্যমMore posts in গণমাধ্যম »
More from জীবনধারাMore posts in জীবনধারা »
More from প্রচ্ছদMore posts in প্রচ্ছদ »
More from বিশেষ সংবাদMore posts in বিশেষ সংবাদ »

Be First to Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Mission News Theme by Compete Themes.